Bangla SerialEntertainment

সার্থকের চরিত্র সবার ভালো লাগছে এটাই বড় প্রাপ্তি! জীবনের গল্প ভাগ করলেন মৈনাক ঢোল!

জি বাংলার (Zee Bangla) জনপ্রিয় ধারাবাহিক মিঠিঝোরা (Mithijhora)। তিন বোন- রাই, নীলু আর স্রোতের জীবনের ওঠাপড়াকে কেন্দ্র করে এগিয়ে চলেছে ধারাবাহিকের গল্প। তিন বোনের জীবনেই বর্তমানে এসেছে প্রেম। ছোটবোন স্রোতের সঙ্গে সম্পর্ক গড়ে উঠছে তাঁর স্যার ডক্টর সার্থক সেনগুপ্তর। পর্দায় যে চরিত্রে অভিনয় করছেন অভিনেতা মৈনাক ঢোল (Mainak Dhol)

এই মুহূর্তে মিঠিঝোরায় স্রোত ও সার্থক স্যারের সম্পর্কের সমীকরণ

পর্দার সার্থক স্যার ও স্রোতের খুনসুটি জনপ্রিয় দর্শকমহলে। মিঠিঝোরার দর্শকরা অপেক্ষা করে থাকেন পর্দায় ছাত্রী ও স্যারের রসায়ন দেখার জন্য। দুজনের সম্পর্কের শুরুটা তিক্ততাপূর্ণ হলেও, বর্তমানে স্রোতের জন্য ভালোবাসার জন্ম হয়েছে সার্থক স্যারের মনে। কলেজের ফাংশনের দিন স্রোতকে দেখে অদ্ভুত স্নিগ্ধ মনে হয় তার। তারপর থেকেই ভাল লাগার সূত্রপাত।

মৈনাক ঢোলের সঙ্গে আড্ডায়…

মিঠিঝোরাই তাঁর প্রথম ধারাবাহিক। আর প্রথম ধারাবাহিকেই বাজিমাত! ইতিমধ্যেই বাংলা ধারাবাহিকপ্রেমী মহলে নিজের শক্তপোক্ত ফ্যানবেশ তৈরি করে ফেলেছে পর্দার সার্থক স্যার ওরফে মৈনাক ঢোলে। এখন নাকি পথে ঘাটে আচমকা মানুষ প্রশ্ন করে বসে, ‘স্রোতের সঙ্গে খারাপ ব্যবহার করেন কেন!’

তবে দর্শকদের রোষের মুখে পড়তে ভাল লাগছে এই মুহূর্তে। চরিত্রের প্রয়োজনে ‘রুড’ দেখানো হচ্ছে তাকে। দর্শক পর্দায় ঠিক দেখছে। অর্থাৎ, নিখুঁত ভাবে চরিত্রে ফুটিয়ে সক্ষম হচ্ছে মৈনাক। এখন মা এসে বলেন সকলে নাকি প্রশংসা করছেন। বন্ধুবান্ধব, আত্মীয়স্বজন সকলের পর্দায় দেখতে ভাল লাগছে মৈনিককে।

মৈনাকের ব্যক্তিগত জীবন

মৌনাক কি প্রেম করেন? অভিনেতা বলেন, ‘না।’ বর্তমানে কেরিয়ারকে সময় ও মনোযোগ দিচ্ছেন মৈনাক। এখন লক্ষ্য অনেক কাজ করা। সার্থকের পরিবার বলতে একমাত্র তাঁর মা। বাবা নেই। তাই জীবনের ভাল-মন্দ সবকিছুই ভাগ করে নেওয়ার বন্ধু মা।

Joyee Chowdhury

কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে সাংবাদিকতা ও গণযোগাযোগ-এ স্নাতকোত্তর। বিনোদন ও সংস্কৃতি বিভাগই মূল ক্ষেত্র। আমার লেখা আরও পড়তে এখানে ক্লিক করুন।