Bangla SerialEntertainment

নিম ফুলের মধুতে দারুণ পর্ব! এবার জমবে পিকলু-বর্ষার প্রেম! এই জুটিকে ফের একসঙ্গে দেখতে চান আপনারা ?

বর্তমানে বেঙ্গল টপার ধারাবাহিক জি বাংলার (Zee Bangla) নিম ফুলের মধু (Neem Phooler Madhu)। শুরু থেকেই ধারাবাহিকটি মন জয় করে এসেছে দর্শকদের। প্রতি সপ্তাহেই ধারাবাহিকে নতুন নতুন চমক ভীষণ পছন্দ করেছেন অনুরাগীরা। পর্ণার তার কাটা বুদ্ধি, পর্ণার ক্ষতি করার জন্য ঈশার একের পর এক পরিকল্পনা সব মিলিয়ে পর্দায় জমজমাট নিম ফুলের মধু। সেই কারণেই লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে ধারাবাহিকের টিআরপি। প্রায় প্রতি সপ্তাহেই বেঙ্গল টপারের খেতাব দখল করে নিচ্ছে পর্ণা।

নিম ফুলের মধু ধারাবাহিকের জনপ্রিয় জুটি বর্ষা আর পিকলু

পর্দায় বিপুল জনপ্রিয় পর্ণা আর সৃজনের জুটি। তবে পর্ণা আর সৃজনের জুটি বাদ দিয়ে ধারাবাহিকের যে জুটি দর্শকদের দৃষ্টি আকর্ষণ করতে সক্ষম হয়েছে সেটা হল বর্ষা আর সৃজনের জুটি। বর্ষা আর পিকলু খুনসুঁটি, ঝগড়া, ভালোবাসা সবটা বেশ পছন্দ করেছেন দর্শকরা। তবে পর্ণা-সৃজন, চয়ন-রুচিতার জুটির মতো এখনও পরিণত পায়নি বর্ষা আর পিকলু সম্পর্ক। বরং কাছে সেও নিয়মের পাকে পড়ে আলাদা হয়ে যেতে বাধ্য হয়েছে বর্ষা আর পিকলু।

image 7

দিদির কথা ভেঙে প্রথমে বর্ষাকে ভালোবাসার কথা স্বীকার করেনি পিকলু। কিন্তু বর্ষার বিয়ের দিন যখন সে পর্ণাকে সবটা জানায় ততক্ষণে শেষ হয়ে গেছে সব। বিয়ে হয়ে গেছে অর্ণব আর বর্ষার। তবে শত ঝড় ঝঞ্ঝার মধ্যে দিয়ে গেলেও এক ফোঁটাও ফিকে হয়ে যায়নি বর্ষা আর পিকলুর সম্পর্ক। তবে ইতিমধ্যেই ধারাবাহিকে এসেছে বিশেষ চমক। বর্ষার বিয়ের সমস্যার কথা জানতে পেরেছে পিকলু। সঙ্গে এও জানতে পেরেছে যে বর্ষার ওপর কিভাবে অর্ণব অত্যাচার করে। ধারাবাহিকে এই নতুন চমক দেখে অনেকেই আশা করছেন এবার হয়ত এক হবে বর্ষা আর পিকলু।

image 8

নিম ফুলের মধুর পটভূমি নিয়ে কি বললেন ঋষভ চক্রবর্তী এবং শৈলী ভট্টাচার্য

সম্প্রতি বর্ষা আর পিকলুর সাক্ষাৎকার নিতে গিয়েছিল এক জনপ্রিয় সংবাদ মাধ্যম। সেখান ধারাবাহিকের পটভূমি নিয়ে বর্ষার চরিত্র অভিনেত্রী শৈলী ভট্টাচার্য বলেছেন “বর্ষা আর বরকে ভালবাসবে কি করে, খালি তো অত্যাচার, ডোমেস্টিক ভায়োলেন্স চলছে।” প্রেমিকা ওপর এত অত্যাচার কেন কিছু করছে না পিকলু? অভিনেতা ঋষভ চক্রবর্তী বলেছেন “আমি তো ওর দুঃখে বাইরে চাকরি করতে চলে গিয়েছিলাম সেখানে গিয়ে কিডন্যাপও হয়ে গেছি। তবে এবার হয়ত কিছু হবে যা শুনতে পারছি এবার হয়ত পিকলু কিছু একে করবে।”

ঋষভ চক্রবর্তী অনুপস্থিত থাকলে কি তাকে মিস করে শৈলী ভট্টাচার্য?

অভিনেত্রী উত্তরে জানান “নির্ভর করে। ওর একটা নাম আছে সেটা সবাই দিয়েছে আর সেটা বলেই ওকে মনে করি।” তখনই অভিনেতা বলে ওঠে “ওর শান্তি হয়না আমার না জ্বালিয়ে। সবারই একটা নাম দিয়েছে ও।” পাল্টা উত্তরে শৈলী বলেন “তুই তোর ছোট্ট জগতে খুশি থাক। যদিও আমি যখন ওকে প্রথম দেখেছিলাম আমার ওকে অহংকারী মনে হয়েছিল পরে সিন করতে গিয়ে দেখি এরকম।” সেটা শুনে অভিনেতা বলেন তিনি নিজের জগতে থাকতেই বেশি ভালোবাসেন তিনি খুব ইন্ট্রোভার্ট। ঘুমোনো, গান শোনা, গান গাওয়া এখানেও তাই করে। তবে শৈলীর ডাকে সাড়া না দিলেই শৈলী রেগে যায়। এই বলেই সাক্ষাৎকারের মাঝে শুরু হয়ে যায় দুজনের খুনসুঁটি আর ঝগড়া। তবে দর্শকরা যে খুব শীঘ্রই বর্ষা আর পিকলু জীবনে নতুন চমক দেখতে পাবে এবার বলাই বাহুল্য।

Ruhi Roy

রুহি রায়, গণ মাধ্যম নিয়ে যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয় থেকে স্নাতকোত্তর পাশ। সাংবাদিকতার প্রতি টানে এই পেশায় আসা। বিনোদন ক্ষেত্রে লেখায় বিশেষ আগ্রহী। আমার লেখা আরও পড়তে এখানে ক্লিক করুন।