Bangla SerialEntertainment

জন্মদিনে মায়ের হাতের পায়েস খাওয়া হলনা কনীনিকার! মন খারাপ অভিনেত্রীর! কিন্তু কেন পায়েস খাওয়া থেকে বঞ্চিত হলেন তিনি?

আজ ২১ মে। বাংলার জনপ্রিয় অভিনেত্রী কনীনিকা ব্যানার্জীর (Koneenica Banerjee) আজ পা দিলেন ৪৪ বর্ষে। বাংলা সিনেমায় জগতে একজন অত্যন্ত জনপ্রিয় মুখ থেকে। সিনেমা থেকে ধারাবাহিক, নিজের অভিনয়ের দক্ষতায় তিনি মন জয় করেছেন সকলের। তবে এই বিশেষ দিনেও আনন্দ নেই অভিনেত্রীর মনে। গুরুতর অসুস্থ অভিনেত্রীর মা। তাই আজকের বিশেষ দিনেও আলাদা করে উদযাপনে মাততে নারাজ অভিনেত্রী।

হাসপাতালে ভর্তি মা, জন্মদিনের আনন্দ থেকে নিজেকে সরিয়ে দিলেন অভিনেত্রী কনীনিকা ব্যানার্জী

মায়ের শরীর স্বাস্থ্যর কারণে কয়েকমাস ধরেই বেশ চিন্তিত অভিনেত্রী কনীনিকা। অভিনেত্রীর জীবনেই এই বিশেষদিনে একটি সর্বভারতীয় সংবাদ মাধ্যম যোগাযোগ করেছিল অভিনেত্রীর সঙ্গে। অভিনেত্রী জানিয়েছেন “চেন্নাইয়ে চিকিৎসা করিয়ে দেড় মাস পর কলকাতায় ফেরেন মা। আবার দশ দিনের মাথায় অসুস্থ হওয়ায় মাকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। আজকে সত্যি আর জন্মদিন বলে আলাদা করে উত্তেজনা অনুভব করছি না।”

অভিনেত্রী জানিয়েছেন বাড়িতে থাকলে মায়ের হাতের তৈরি পায়েস অভিনেত্রীর কাছে সবচেয়ে বড় প্রাপ্তির বিষয়। কিন্তু এইবারের জন্মদিনে সেটা হয়নি। ভোরে ঘুম থেকে উঠেই মায়ের সঙ্গে দেখা করতে হাসপাতালে গিয়ে উপস্থিত হয়েছিলেন অভিনেত্রী। কনীনিকা বলেছেন “মা তো আমাকে দেখেই হতবাক। এখন তো আমিও একজন মা। তাই বুঝি, সন্তানের জন্মদিনে হাসপাতালের বিছানায় শুয়ে থাকাটা তাঁর কাছে কতটা কষ্টের।”

কিভাবে জন্মদিন কাটাচ্ছেন কনীনিকা ব্যানার্জী?

তবে অভিনেত্রী না চাইলেও তার বন্ধুরা তাকে এই বিশেষ দিনে একেবারেই মনমরা থাকতে দেননি। অভিনেত্রীর জানিয়েছেন “আমার বন্ধুরা থুড়ি আমার দিদিরা দুপুরে একটা ছোট্ট আয়োজন করেছে। তাই মেয়েকে নিয়ে সেখানে যাব। বিকেলে বাবা কাকার সঙ্গে সময় কাটাবো।” মঙ্গলবার অর্থাৎ আজ অভিনেত্রীর জন্মদিন। তবে তার আগেই গত সপ্তাহে বন্ধুবান্ধবীদের নিয়ে একটি ছোট্ট পার্টির আয়োজন করেছিলেন অভিনেত্রী কনীনিকা।

কেন জন্মদিনের পার্টি আগেই দিয়েছিলেন অভিনেত্রী কনীনিকা ব্যানার্জী

তবে জন্মদিনের আগেই পার্টি কেন? অভিনেত্রীর কথায়, “আসলে মেয়ের স্কুলে গরমের ছুটি শুরু হয়েছে। আমাদের সকলে মিলে থাইল্যান্ড ঘুরতে যাওয়ার পরিকল্পনা ছিল। তাই আগেই একটা ছোট্ট অনুষ্ঠান করেছিলাম। কিন্তু মায়ের অসুস্থতার কারণে সব বাতিল করতে হয়েছে। এই বিশেষ দিনে কি রেজোলিউশন নিলেন অভিনেত্রী? কনীনিকার মতে, “আমি চাই সবাই যেন ভালো থাকে, সুস্থ থাকে। তার চেয়ে বেশি এই পৃথিবীর কাছে আর কিছুই চাইনা।”

Ruhi Roy

রুহি রায়, গণ মাধ্যম নিয়ে যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয় থেকে স্নাতকোত্তর পাশ। সাংবাদিকতার প্রতি টানে এই পেশায় আসা। বিনোদন ক্ষেত্রে লেখায় বিশেষ আগ্রহী। আমার লেখা আরও পড়তে এখানে ক্লিক করুন।