জয়েন গ্রুপ

বাংলা সিরিয়াল

এই মুহূর্তে

Food

হোক নতুন কিছু! দশমীর মিষ্টিমুখে এই বছর বাড়িতেই বানিয়ে ফেলুন খেজুরের হালুয়া!

আজ বিজয়া দশমী। মায়ের বাড়িতে ফেরার পালা। মাকে পাওয়ার জন্য আরও একটা বছরের অপেক্ষা। বিজয়া দশমীর এই শুভক্ষণে ছোটদের বড়দের প্রণাম করার এক রীতি রেওয়াজ আমাদের মধ্যে প্রচলিত রয়েছে। আর এই সময়ে ছোটবেলায় উত্তেজনা থাকত প্রণাম করতে গিয়ে নিমকি, প্যাড়াকি, সুজির নাড়ু, নারকেল নাড়ু খাওয়ার।

তবে এখন সেই সমস্ত খাবার গৌণ হয় পড়েছে। জায়গা করে নিয়েছে বাইরে থেকে কেনা খাবার। তবে এবার বিজয়া দশমীতে বানিয়ে নিন এক ভিন্ন ধরনের মিষ্টি। খেজুরের হালুয়া। যেমন ভালো খেতে তেমন‌ই পুষ্টিকর।

উপকরণ: শুকনো খেজুর ২ কাপ, দুধ প্রয়োজন মতো, কিশমিশ ১৫-২০টা, কাজু প্রয়োজনমতো, পেস্তাকুচি ২-৪টে, সাদা তেল ২ টেবিল চামচ, চিনি গুঁড়ো ১১/২ কাপ, ঘি ৩ টেবিল চামচ, এলাচ গুঁড়ো ২ চিমটে, জায়ফল-জয়িত্রী গুঁড়ো ২ চিমটে, খোয়া।‌

রন্ধন প্রণালী: প্রথমেই খেজুর গরম জলে ফুটিয়ে নিন। এরপর ঠান্ডা করে ঘণ্টা দুয়েকের জন্য ঠান্ডা জলে চুবিয়ে রাখুন। এবার ভিতর থেকে বীজ বের করে দুধ দিয়ে খেজুর মিক্সিতে বেঁটে নিন। এবার কড়াইতে ঘি দিন। সঙ্গে সাদা তেলও। তেল গরম হয়ে এলে খেজুরের মিশ্রণটি কড়াইতে দিয়ে নাড়তে থাকুন।

এবার গুঁড়ো চিনি মিশিয়ে আবারও ভালো করে নাড়ুন। ভাজা ভাজা হয়ে এলে তার মধ্যে কিশমিশ, কাজু, পেস্তা, খোয়া মিলিয়ে ফের নাড়তে থাকুন। এবার দিয়ে দিন এক টেবিল চামচ ঘি। এরপর এলাচ গুঁড়ো এবং জয়িত্রী-জায়ফল গুঁড়ো মিশিয়ে নামিয়ে নিন। ঠান্ডা হলে পরিবেশন করুন।

Rimi Datta

রিমি দত্ত কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে স্নাতকোত্তর। কপি রাইটার হিসেবে সাংবাদিকতা পেশায় চার বছরের অভিজ্ঞতা।